শনিবার ২৭ মে ২০১৭


২০১৭-তেই ৪৫৯টি বিচিত্র যৌনতার অভিযোগ: ক্ষত-বিক্ষত লন্ডন


আমাদের অর্থনীতি :
16.02.2017

ডেস্ক রিপোর্ট: চোর বা ডাকাত নয়Ñ লন্ডনের পুলিশ, দমকল এবং অ্যাম্বুল্যান্স পরিষেবা এখন ক্ষত-বিক্ষত বিচিত্র যৌনতার দাবিতে। ব্রিটেনে কোনো নাগরিক তার বাড়িতে কোনো বিপদে পড়েন, তাহলে ৯৯৯ নম্বরে ফোন করলে তৎক্ষণাৎ চলে আসেন উদ্ধারকারীরা। দেখা যাচ্ছে, গতবছরে উদ্ধারকারীদের কাছে যে বিপদ সংকেত গুলো এসেছে, তার ৪৫৯টি এসেছে বিচিত্র যৌনতার জেরে।  আজকাল

কেউ কেউ ‘ন্ডেজ সেক্স’ করতে গিয়ে দম বন্ধ হয়ে মরোমরো হয়ে গেছেন। কেউ ধর্ষকাম করতে গিয়ে সঙ্গী বা সঙ্গিনীকে অজ্ঞান করে ফেলেছেন। কেউ যদি ডাকিনীচক্রের আদলে দলগত যৌনতার আসর বসিয়ে আগুনে আটকে পড়েছেন। ২০১৭-এ ইতিমধ্যেই ঘটেছে ৩৭৬টি ঘটনা।  সমীক্ষা বলছে, গত কয়েক বছরে ১০২ জন নারী-পুরুষকে বেকায়দায় আটকে যাওয়া হাতকড়া থেকে মুক্ত করেছেন। কম করে ২৩ জন পুরুষের যৌনাঙ্গ লোহার কড়ায় আটকে যাওয়ার ঘটনাও ঘটেছে। হঠাৎ কেন বেড়ে গেল এই বিচিত্র যৌনতার ঘটনা?

অনেকেই বলছেন, এটাই এল জেমস-এর যৌন উদ্দীপক উপন্যাস ‘ফিফটি শেডস অফ গ্রে’-এর ফল। এই বইতে বিচিত্র যৌনতার যে বর্ণনা দেওয়া হয়েছে, সেটা নিজেদের জীবনে প্রয়োগ করতে গিয়েই ফেঁসে যাচ্ছেন পাঠকরা। সম্পাদনা: মাসুম মুনাওয়ার