সোমবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৭


যুবক বয়সই  হজের শ্রেষ্ঠ সময়


আমাদের অর্থনীতি :
17.02.2017

হজ করা ফরজÑ এমন প্রায় মানুষই বৃদ্ধ বয়সে হজে যাওয়ার চিন্তা করেন। এটা ঠিক নয়। হজে গিয়ে এমন কিছু কাজ করতে হয়Ñ যার জন্য শারীরিক শক্তির প্রয়োজন। তাই বয়সের কোঠা ৫০ পার করার আগেই পবিত্র হজ সম্পন্ন করা উচিত। বৃহস্পতিবার দৈনিক আমাদের অর্থনীতির সঙ্গে একান্ত আলাপকালে এসব কথা বলেন, আল-মদিনা ট্রাভেলসের পরিচালক আলহাজ মাওলানা আবদুল গাফ্ফার খান।

তিনি বলেন, একজন মানুষকে হজ পালন করার আগে অবশ্যই শারীরিক ও মানসিক প্রস্তুতি নিতে হবে। অনেকে মনে করেন হজ করলে তো আর গুনাহ করা যাবে না। তাই তারা হজ পালন করতে বিলম্ব করেন। মনে রাখতে হবেÑ গুনাহ করা এবং গুনাহের মানসিকতা রাখা সব সময়ই পাপ। এটা হজের আগেও যেমন পাপ হজের পরেও পাপ। কুরআনে আল্লাহপাক ইরশাদ করেছেন, মানুষের মধ্য থেকে যারা সেখানে পৌঁছার সামর্থ্য রাখে, তারা যেন এই গৃহের হজ সম্পন্ন করে, এটি তাদের ওপর আল্লাহর অধিকার। আর যে ব্যক্তি এ নির্দেশ মেনে চলতে অস্বীকার করে তার জেনে রাখা উচিত, আল্লাহ বিশ্ববাসীর মুখাপেক্ষী নন। [আল ইমরা : ৯৭]

মাওলানা আবদুল গাফ্ফার খান বলেন, ইসলামের অন্যান্য ইবাদত যেমনÑ নামাজ ও রোজা থেকে হজ ব্যতিক্রমী ইবাদত। এই ইবাদতের ক্ষেত্রে অর্থের প্রয়োজন হয় আবার শারীরিক সক্ষমতারও প্রয়োজন। অনেক মানুষই হজ করতে যান জীবনের শেষ দিকে। অনেক অর্থ খরচ করে তারা এই হজ পালন করতে যান কিন্তু সেখানে গিয়ে প্রতিটি মুহূর্তে অনুধাবন করেনÑ আরও আগে হজ করার প্রয়োজন ছিল। তাই বয়সের কোঠা ৫০ পার করার আগেই সামর্থ্যবানদের জন্য হজ করে ফেলা উচিত বলে মনে করি। হজের খরচ ও টাকা পয়সা নিয়ে হাজিরা কোনো সমস্যায় ভোগেন কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, অনেক হাজি হজে যাওয়ার আগে পরিচিত মানুষের মাধ্যমে এজেন্সিকে হাতে হাতে টাকা দিয়ে থাকেন। এতে করে এক ধরনের সমস্যা তৈরি হয়। অনেক সময় দেখা যায়, টাকা পয়সার ঝামেলার কারণে ওই বছর তার হজে যাওয়াটাই অনিশ্চত হয়ে পড়ে। তাই হজযাত্রী হজে যাওয়ার জন্য যত টাকা লেনদেন করবেন তার উচিত অবশ্যই ট্রাভেল এজেন্সির নিজেস্ব একাউন্টে লেনদেন করা। তখন কোনো কারণে তিনি হজে যেতে না পারলেও অন্তত টাকা ফেরত পাবেন এবং পরবর্তী বছর হজে যাওয়ার চেষ্টা করতে পারবেন। এবার যারা হজে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন তাদের করণীয় বিষয়ে মাওলানা আবদুল গাফ্ফার খান বলেন, যে হজে যাওয়ার ইচ্ছা পোষণ করলেন, সর্বপ্রথম তার কাজ হচ্ছে, একজন আলেমের শরণাপন্ন হয়ে তার থেকে হজের সকল বিষয়ের পরামর্শ গ্রহণ করা। দ্বিতীয়ত হজের গুরুত্বপূর্ণ দোয়াগুলো খুব ভালো করে মুখস্থ করা বিশেষ করে হজের তালবিয়া। তৃতীয়ত শারীরিক কোনো অসুবিধা থাকলে ট্রাভেলস কর্তৃপক্ষকে আগে থেকে জানানো। চতুর্থ হজে যাওয়ার জন্য যত টাকা লেনদেন করা হবে তার একটি টাকাও যেন হজ ট্রাভেলসের নিজেস্ব একাউন্ট ছাড়া লেনদেন না করা হয়। সাক্ষাৎকার গ্রহণ : ওয়ালি উল্লাহ সিরাজ