বুধবার ২৬ এপ্রিল ২০১৭


এখানে সায়োনাইড বিক্রিও হয় ‘জনগণের স্বার্থে’


আমাদের অর্থনীতি :
18.02.2017

 

শরিফুজ্জামান শরিফ

বিএনপি কি ভাবছিল সরকার এমন ব্যাবস্থা করবে যাতে তারা ইলেকশনে বেনিফিট পাবে? যতই স্বচ্ছতার সঙ্গে আপনি সিস্টেম ডেভেলপ করেন বিএনপি ফেভার পায় এমন কোনো কাজ আওয়ামী লীগ করবে না যেমন বিএনপি করেনি। দুদলের পরস্পরকে ধরাশায়ী করার কৌশলের ভিতরে যার সারভাইভ করার কৌশল জানা আছে তারা কৌশলে জিতে আসবে। জনমত?

এখানে সব রাজনৈতিক আকাজ করা হয়েছে জনগণের নামে, মোড়কে লেখা হয়েছে ‘ইহা জনস্বার্থে গৃহীত হয়েছে’। রাষ্ট্রের মদদে লুট, খুন, ভূমিহীন এর বাড়ি দখল, সবকিছু নাকি জনস্বার্থে করা হয়-হয়েছে-হচ্ছে! সামরিক শাসন এসেছে জনগণের স্বার্থে। তাদের বিতাড়িত হতে হয়েছে জনগণের স্বার্থে। সরকারি কোনো আমলার বয়স না বাড়ালেও বিচাপতির বয়স বাড়ানো হয়েছে জনগণের স্বার্থে।  রাষ্ট্রপতিকে প্রধান উপদেষ্টা করা হয়েছে জনগণের স্বার্থে। তাকে বিদায় নিতে হয়েছে জনগণের স্বার্থে।

রাষ্ট্রপতিকে দিয়ে খুনের আসামির দ- মাফ করানো হয়েছে জনগণের স্বার্থে। আলোচিত বহু হত্যার তদন্ত-বিচার আটকে রাখা হচ্ছে জনগণের স্বার্থে। ব্যাংকের টাকা পাচার, সে টাকায় বিদেশে বাড়ি, শেয়ারবাজার লুট, লুটেরাদের সুরক্ষাÑ সব জনগণের স্বার্থে। আন্দোলন করে কেয়ারটেকার এসেছে আবার গিয়েছে জনগণের স্বার্থে। এখানে সায়োনাইড বিক্রিও হয় ‘জনগণের স্বার্থে’।

লেখক: রাজনৈতিক বিশ্লেষক/ফেসবুক থেকে