বৃহস্পতিবার ২৩ নভেম্বর ২০১৭


ইন্দুরকানীতে  বিদ্যুৎ বিভ্রাটে জনজীবনে চরম ভোগান্তি


আমাদের অর্থনীতি :
20.05.2017

খেলাফত হোসেন খসরু,পিরোজপুর: পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে গড়ে ১৮ ঘণ্টা  বিদ্যুৎ সরবরাহ না থাকায় জনজীবনে ভোগান্তির স্বীকার হতে হচ্ছে। উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় মাসব্যাপী দিনরাত বিদ্যুৎ  যাওয়া আসার বিপাকে পড়েছে হাজার হাজার গ্রহকরা। নতুন সংযোগ, লাইল পরিস্কার ও মিটার পরিবর্তন সহ সামান্য ঝড় বৃষ্টি হলেই বিদ্যুৎ বন্ধ রাখা হয়।এর ফলে, সরকারি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানসহ বিভিন্ন ধরনের অফিস আদালতের কার্মকান্ড ব্যবহত হচ্ছে। বিদ্যুৎ না থাকার কারণে উপজেলার বিভিন্ন এলাকার মিল কারখানাগুলোন্ধ থাকে, স্কুল,কলেজের ছাত্রছাত্রীদের লেখা পড়ার চরম ক্ষতি হচ্ছে।

এ জন্য দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে জনসাধারণের। সারাদিনে বিদ্যুৎ না থাকার পরেও বিদ্যুৎ আসলে আবার রাতেও  ঘন্টার পর ঘন্টা লোডশেডিং। প্রচ- গরমের কারণে বিদ্যালয়ে উপস্থিতির হার কমে যাচ্ছে।  ইন্দুরকানী বাজার ব্যবসায়ী মো. সুমন জানান, বিদুৎ না থাকার কারণে আমাদের ব্যাবসা প্রতিষ্ঠান ব্যাপক ক্ষতি হচ্ছে। বিদ্যুৎ কখন আসে আর কখন যায় তা বলতে পারিনা এবং বিদ্যুৎ বিভাগের কর্মচারি কর্মকর্তাকে অভিযোগ করলেও কোন সমাধান দিতে পারে না। ইন্দুরকানী বাজারের মিল মালিক রিয়াজুল হক জানায়, দিনে ও রাতে বিদ্যুৎ গড়ে ১৮ ঘণ্টাও থাকে না। যার কারণে  দিনে মিল বন্ধ থাকে। রাতে একই  কারণে শ্রমিকরা কাজ করতে পারে না।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক পল্লীবিদ্যুতের গ্রাহক প্রার্থী জানায়, বিদ্যুতের লাইন পাশ করার পরেও অফিসের কিছু দালালরা আমাদের কাছ থেকে নানা অযুহাতে অনেক টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। লাইন সুপারভাইজারদের কাছে জিম্মি হয়ে পড়েছে নতুন সংযোগগুলো।  এ ব্যাপারে জিয়ানগরে আইনশৃঙ্খলা সভায় আলোচনা চলেও কোনো সমাধান হয়নি। সম্পাদনা: মুরাদ হাসান