বৃহস্পতিবার ২৯ জুন ২০১৭
  • প্রচ্ছদ » অফবিট » সিরিয়ার ডেরায় যুদ্ধ বিরতি ঘোষণা করলো দেশটির সেনাবাহিনী


সিরিয়ার ডেরায় যুদ্ধ বিরতি ঘোষণা করলো দেশটির সেনাবাহিনী


আমাদের অর্থনীতি :
19.06.2017

সালেহ ইউসুফ : সিরিয়া ডেরার দক্ষিণাঞ্চলীয় শহরে ৪৮ ঘণ্টার যুদ্ধবিরতি ঘোষণা করেছে দেশটির সেনাবাহিনী। দেশটির বার্তা সংস্থা সানার প্রতিবেদন অনুযায়ী, দেশটির সেনাবাহিনী মীমাংসা প্রচেষ্টার লক্ষ্যে শনিবার সকাল নয়টা থেকে এ যুদ্ধবিরতি ঘোষণা দিয়েছে। মধ্যাস্থতাকারীরা দেশটির চলতি যুদ্ধবিগ্রহের সমস্যা মীমাংসার জন্য আগামী মাসে পৃথক দুইটি গোলটেবিল বৈঠক আহ্বান করেছে।

প্রসঙ্গত, শনিবার জাতি সংঘ সিরিয়ার গোষ্ঠীগত দলাদলির ব্যাপারে ১০ জুলাই জেনাভায় আলোচনা শুরু করার কথা জানায়। এর কিছুক্ষণ পরই যুদ্ধবিরতির এ ঘোষণা দিল দেশটির সেনাবাহিনী।  অন্যদিকে মস্কো বলেছে, আশা করা হচ্ছে ৪-৫ জুলাই কাজাখস্তানের রাজধানী আস্তানায়ও এ ব্যাপারে আলোচনা করা হবে।

জেনেভায় জাতি সংঘের মধ্যস্থতায় সিরিয়ার বিদ্রোহী গোষ্ঠী এবং দেশটির প্রসিডেন্ট বাসার আল- আসাদের মধ্যে কয়েকটি সমঝোতো বৈঠক হলেও কোনো ফলই হয়নি। দেশটির যুদ্ধবিগ্রহের সমস্যা নিরসনে রাশিয়ার মধ্যস্থতায় কাজাখস্তানের আস্তানায়ও জানুয়ারি থেকে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। যা এখনো চলছে। সিরিয়ার জাতি সংঘের বিশেষ কূটনৈতিক দূত ই-মেইল বার্তায় দেশটির সমস্যা সমাধানে জুলাইয়ে বৈঠক করার ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন। পরবর্তী বৈঠক অগাস্ট এবং সেপ্টেম্বরে করার ইচ্ছা প্রকাশ করেন।  আলজাজিরা।

সালেহ ইউসুফ : সিরিয়া ডেরার দক্ষিণাঞ্চলীয় শহরে ৪৮ ঘণ্টার যুদ্ধবিরতি ঘোষণা করেছে দেশটির সেনাবাহিনী। দেশটির বার্তা সংস্থা সানার প্রতিবেদন অনুযায়ী, দেশটির সেনাবাহিনী মীমাংসা প্রচেষ্টার লক্ষ্যে শনিবার সকাল নয়টা থেকে এ যুদ্ধবিরতি ঘোষণা দিয়েছে। মধ্যাস্থতাকারীরা দেশটির চলতি যুদ্ধবিগ্রহের সমস্যা মীমাংসার জন্য আগামী মাসে পৃথক দুইটি গোলটেবিল বৈঠক আহ্বান করেছে।

প্রসঙ্গত, শনিবার জাতি সংঘ সিরিয়ার গোষ্ঠীগত দলাদলির ব্যাপারে ১০ জুলাই জেনাভায় আলোচনা শুরু করার কথা জানায়। এর কিছুক্ষণ পরই যুদ্ধবিরতির এ ঘোষণা দিল দেশটির সেনাবাহিনী।  অন্যদিকে মস্কো বলেছে, আশা করা হচ্ছে ৪-৫ জুলাই কাজাখস্তানের রাজধানী আস্তানায়ও এ ব্যাপারে আলোচনা করা হবে।

জেনেভায় জাতি সংঘের মধ্যস্থতায় সিরিয়ার বিদ্রোহী গোষ্ঠী এবং দেশটির প্রসিডেন্ট বাসার আল- আসাদের মধ্যে কয়েকটি সমঝোতো বৈঠক হলেও কোনো ফলই হয়নি। দেশটির যুদ্ধবিগ্রহের সমস্যা নিরসনে রাশিয়ার মধ্যস্থতায় কাজাখস্তানের আস্তানায়ও জানুয়ারি থেকে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। যা এখনো চলছে। সিরিয়ার জাতি সংঘের বিশেষ কূটনৈতিক দূত ই-মেইল বার্তায় দেশটির সমস্যা সমাধানে জুলাইয়ে বৈঠক করার ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন। পরবর্তী বৈঠক অগাস্ট এবং সেপ্টেম্বরে করার ইচ্ছা প্রকাশ করেন।  আলজাজিরা।